পঞ্চম পাঠ ⇒ নব নব সৃষ্টি

1. যে ভাষাগুলসিকে লেখক আত্মনির্ভিরশীল এবং অধিকাংশ ক্ষেত্রেই স্বয়ংসম্পূর্ণ বলেছেন, সেগুলি হল –

 
 
 
 

2. বেনামিতে লেখা ‘অসাধু’ রচনায় ‘আরবি-ফার্সি ভাষা ব্যবহার করেছেন কে?

 
 
 
 

3. ‘ইনকিলাব’, ‘শহিদ’ প্রভৃতি শব্দ বাংলায় অনায়াসে ব্যবহার করেছেন –

 
 
 
 

4. পাঠান-মােগল যুগে বাংলা ভাষায় প্রচুর আরবি-ফারসি শব্দ প্রবেশ করার কারণ-

 
 
 
 

5. “এই দুই বিদেশি বস্তুর ন্যায় আমাদের ভাষাতেও বিদেশি শব্দ থেকে যাবে” – বিদেশি বস্তু দুটি হল-

 
 
 
 

6. “হিন্দি উপস্থিত সেই চেষ্টাটা করছেন”। – এখানে হিন্দির যে চেষ্টার কথা বলা হয়েছে, তা হল-

 
 
 
 

7. কোনাে নতুন চিন্তা, অনুভূতি কিংবা বস্তুর জন্য নবীন শব্দের প্রয়ােজন হলে যে ভাষা ধার করার কথা ভাবে না-

 
 
 
 

8. “সংস্কৃত ভাষা আত্মনিভরশীল।” – লেখক সংস্কৃতকে আত্মনির্ভরশীল বলেছেন, কারণ –

 
 
 
 

9. ‘হুতােম’ বলতে বােঝানাে হয়েছে।

 
 
 
 

10. “সংস্কৃতকে স্বয়ংসম্পূর্ণ ভাষা বলতে কারও কোনাে আপত্তি থাকার কথা নয়।” সংস্কৃতকে স্বয়ংসম্পূর্ণ ভাষা বলার কারণ-

 
 
 
 

Question 1 of 10